NATIONAL
Prime Minister Sheikh Hasina laid emphasis on extracting 'marine resources' from Bangladesh's vast marine area while maintaining friendly relations with neighboring countries for socio-economic progress of the country || প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশের আর্থ-সামাজিক অগ্রগতির জন্য প্রতিবেশী দেশগুলোর সঙ্গে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক বজায় রেখে বাংলাদেশের বিশাল সামুদ্রিক এলাকা থেকে ‘সামুদ্রিক সম্পদ’ আহরণ করার ওপর গুরুত্ব আরোপ করেছেন
সংবাদ সংক্ষেপ
স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে মেধাবী শিক্ষার্থীদের মূল্যায়ন করতে হবে : মেয়র আনোয়ারুজ্জামান বাংলাদেশ এসোসিয়েশন অব মিশিগানের সভাপতি জাবেদ সাধারণ সম্পাদক খালেদ খেলাধুলায় জয়-পরাজয়ের চেয়ে অংশগ্রহণ গুরুত্বপূর্ণ : সিনিয়র জনপ্রশাসন সচিব নবীগঞ্জে শাখা বরাক নদী বাঁচাতে ও পরিবেশ রক্ষায় এগিয়ে আসার আহ্বান স্মার্ট পারফরম্যান্স অ্যাওয়ার্ড পেলেন ট্রাভেলস ব্যবসায়ী শামীম আহমেদ উন্নয়ন বঞ্চিত বিশ্বনাথের প্রতিটি ক্ষেত্রে এখন উন্নয়ন হবে : শফিকুর রহমান চৌধুরী বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে আন্দোলন-সংগ্রামের পথপরিক্রমায় স্বাধীনতা এসেছে : প্রবাসী কল্যাণ প্রতিমন্ত্রী কৃষি ব্যাংকের সুবিধাগুলো সাধারণ মানুষের সামনে তুলে ধরতে হবে : প্রতিমন্ত্রী শফিক চৌধুরী ভাষাসংগ্রামী পীর হবিবের মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে জালালপুরে আলোচনা সভা মহান শহীদ দিবসে পাঠশালার আয়োজনে ভাষাসংগ্রামীর হাতে শিশুদের হাতেখড়ি সিলেট মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের অভিযানে জুয়া খেলার সামগ্রীসহ ২২ জুয়ারি গ্রেফতার ছাতক উপজেলার পঞ্চগ্রাম উচ্চবিদ্যালয়ে মহান শহীদ দিবস পালন মাধবপুরে শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত সুনামগঞ্জে আর্ন্তজাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে ভাষা শহীদদের স্মরণ হবিগঞ্জ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত সর্বস্তরে বাংলা প্রচলন ও উন্নয়ন ধারা অব্যাহত রাখার অঙ্গীকারে অমর একুশে পালন

সিলেটের সংস্কৃতি ও নাট্যকর্মীদের দাবিতে শারদা স্মৃতি ভবন খুলে দেওয়া হচ্ছে নভেম্বরে

  • বুধবার, ২১ সেপ্টেম্বর, ২০২২

হেনা মমো : সিলেটের সংস্কৃতি ও নাট্যকর্মীদের দাবির পরিপ্রেক্ষিতে সুরমাপারে সাহিত্য-সংস্কৃতি চর্চার এক সময়কার প্রাণকেন্দ্র ঐতিহ্যবাহী শারদা স্মৃতি ভবন (সারদাহল) খুলে দেওয়া হচ্ছে। তবে ঠিক এখনই নয়-নভেম্বর মাসে। আন্দোলনকারীদের আশা, আর কথার বরখেলাপ হবেনা।
মঙ্গলবার বিকেলে শারদা স্মৃতি ভবন সংস্কৃতিচর্চার জন্য খুলে দেওয়ার দাবিতে সম্মিলিত নাট্য পরিষদ, সিলেট আয়োজিত প্রতিবাদী সাংস্কৃতিক সমাবেশে সিলেট সিটি করপোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী এ নিশ্চয়তা দেন।
সম্মিলিত নাট্য পরিষদের ৩৮তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে অন্যান্য বছরের মতো আনন্দ আয়োজন ও নাট্যোৎসব না করে এবার এই সাংস্কৃতিক সমাবেশের আয়োজন করা হয়।
শারদা স্মৃতি ভবনের সামনে বিকেল ৪টা থেকে শুরু হয় গান, কবিতা, নৃত্য ও নাটক পরিবেশন। এর ফাঁকে ফাঁকে ছিল কর্মসূচির সঙ্গে বিভিন্ন শ্রেণিপেশার নেতৃবৃন্দের সংহতি প্রকাশ। খবর পেয়ে ছুটে আসেন সিসিক মেয়রও। ফলে প্রতিবাদী কর্মসূচিটি আরও ঝাঁঝালো হয়ে উঠে।
প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করতে গিয়ে বক্তারা শারদা স্মৃতি ভবনকে জঞ্জালমুক্ত ও এখান সকল অবৈধ স্থাপনা অপসারণ করে সংস্কৃতিচর্চার জন্যে অবিলম্বে খুলে দেওয়ার দাবি জানান।
সম্মিলিত নাট্য পরিষদের সভাপতি মিশফাক আহমেদ চৌধুরী মিশুর সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক রজত কান্তি গুপ্তের পরিচালনায় প্রতিবাদী সাংস্কৃতিক সমাবেশে বক্তব্য দেন প্রবীণ সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব বীর মুক্তিযোদ্ধা ব্যারিস্টার মো আরশ আলী, সিলেট জেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি আল আজাদ, জ্যেষ্ঠ সাংবাদিক ইকরামুল কবির, ইমজা সভাপতি মইনুদ্দিন মঞ্জু,
সিসিক কাউন্সিলর তৌফিক বক্স লিপন, রকিবুল ইসলাম ঝলক, সৈয়দ তৌফিকুল হাদি, বাংলাদেশ আবৃত্তি সমন্বয় পরিষদের কেন্দ্রীয় সহসভাপতি মোকাদ্দেছ বাবুল, সাংস্কৃতিক সংগঠক শামসুল বাছিত শেরো, নিরঞ্জন দে যাদু, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের কেন্দ্রীয় সদস্য সামছুল আলম সেলিম, জেলা সাধারণ সম্পাদক গৌতম চক্রবর্তী, বাংলাদেশ নৃত্যশিল্পী সংস্থা, সিলেট বিভাগের সাধারণ সম্পাদক নীলাঞ্জনা যুঁই, বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন-বাপা সিলেটের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল করিম কিম ও সিলেট ফটোগ্রাফিক সোসাইটির সভাপতি ফরিদ আহমদ।
এছাড়াও সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন প্রবীণ সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব সুনির্মল কুমার দেব মীন, সম্মিলিত নাট্য পরিষদের প্রধান পরিচালক অরিন্দম দত্ত চন্দন, কবি এ কে শেরাম, বিশিষ্ট রবীন্দ্রসঙ্গীত শিল্পী রানা কুমার সিন্হা, উদীচী সিলেটের সভাপতি এনায়েত হাসান মানিক, সম্মিলিত নাট্য পরিষদের সাবেক সভাপতি সৈয়দ মনির হেলাল, সাংস্কৃতিক সংগঠক বিভাষ শ্যাম যাদন, প্রিন্স সদরুজ্জামান, নীলাঞ্জন দাস টুকু, খোয়াজ রহিম সবুজ, উজ্জ্বল দাস, সঙ্গীতশিল্পী অনিমেষ বিজয় চৌধুরী, ফটো জার্নালিস্ট অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি শেখ আশরাফুল আলম নাসির, ইনোভেটর সমন্বয়ক প্রভাষক প্রণব কান্তি দেব, বাংলাদেশ গ্রুপ থিয়েটার ফেডারেশনের নির্বাহী সদস্য তনু দীপ, বাংলাদেশ গ্রাম থিয়েটারের আঞ্চলিক সমন্বয়কারী সাইমুম আনজুম ইভান, সম্মিলিত নাট্য পরিষদের যুগ্মসাধারণ সম্পাদক সুপ্রিয় দেব শান্ত, নির্বাহী সদস্য ফারজানা সুমি, দিবাকর সরকার শেখর প্রমুখ।
প্রতিবাদী সাংস্কৃতিক সমাবেশে সিসিকি মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত উপস্থিত থেকে সংস্কৃতিকর্মীদের অভিযোগ শোনেন।
পরে বলেন, শারদা স্মৃতি ভবন রক্ষার আন্দোলন অবশ্যই যুক্তিসঙ্গত। আগামী নভেম্বর মাসের মধ্যে সংস্কৃতি ও নাট্য কর্মীদের দাবি পূরণ করে শারদা স্মৃতি ভবন সংস্কৃতিচর্চার জন্য খুলে দেওয়া হবে।
তিনি বলেন, কোনো ঐতিহ্য-স্থাপনা ধ্বংস বা মুছে ফেলা কারোরই কাম্য নয়। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানগুলোতে সিটি কর্পোরেশনের সহযোগিতা থাকবে।
মেয়র পীর হবিবুর রহমান পাঠাগারও নভেম্বরের মধ্যে চালু করার প্রতিশ্রুতি দেন।
তবে শারদা স্মৃতি ভবন ও পীর হবিবুর রহমান পাঠাগার এতদিন ধরে বন্ধ থাকার কারণ হিসেবে সরকারি কিছু অঙ্গীকার বাস্তবায়ন না করাকে তিনি দায়ী করেন।
সাংস্কৃতিক সমাবেশে প্রতিবাদী গান ও নাটক পরিবেশন করে উদীচী সিলেট, থিয়েটার বাংলা, থিয়েটার মুরারীচাঁদ, নৃত্যশৈলী এবং সঙ্গীতশিল্পী পল্লবী দাস, আশরাফুল ইসলাম অনি, মারজান ও সাগর।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More

লাইক দিন সঙ্গে থাকুন

সংবাদ অনুসন্ধান

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯  
স্বত্ব : খবরসবর ডট কম
Design & Developed by Web Nest