NATIONAL
A total of 1 crore 4 lakh 8 thousand 918 cattle were sacrificed in the holy Eid-ul-Azha across the country this year || এ বছর পবিত্র ঈদুল আজহায় সারাদেশে মোট ১ কোটি ৪ লাখ ৮ হাজার ৯১৮টি গবাদিপশু কোরবানি দেওয়া হয়েছে
সংবাদ সংক্ষেপ
সিলেটের বন্যার খোঁজ নিচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী || পরিস্থিতি মোকাবিলায় সক্রিয় সিসিক জুড়ীতে পানিবন্দি ৫০ হাজার মানুষ || খোলা হয়েছে ১৪টি আশ্রয়কেন্দ্র সুনামগঞ্জে বন্যা পরিস্থিতি ভয়াবহ || লাখো মানুষ পানিবন্দি || প্রস্তুত আশ্রয়কেন্দ্র সিলেট আবার বন্যা কবলিত || মহানগরীতে জলাবদ্ধতায় ঈদের জামাত ও কোরবানি ব্যাহত মৌলভীবাজারে গুড়ি গুড়ি বৃষ্টি উপক্ষো করে পবিত্র ঈদুল আযহা উদযাপন সিলেট চেম্বারের প্রাক্তন সভাপতি রাজ্জাক চৌধুরীর স্ত্রীর মৃত্যুতে শোক প্রকাশ গোয়াইনঘাটে পানিবন্দি মানুষের মাঝে পুলিশের ঈদ উপহার বিতরণ সিলেটে দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ায় পবিত্র ঈদুল আযহা উদযাপন || ব্যাহত হচ্ছে কোরবানি শাল্লায় বীর মুক্তিযোদ্ধা জমিলা খাতুনের ইন্তেকাল || রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের ৩য় ধাপে নির্বাচিতদের শপথ গ্রহণ সিসিকের প্রথম মেয়র বদর উদ্দিন আহমদ কামরানের ৪র্থ মৃত্যুবার্ষিকী পালিত সিলেটে এবার ট্রাকভর্তি পাথরের নিচ থেকে পৌণে ১২ লাখ টাকার চিনি উদ্ধার আটক ২ ত্রাণ নিয়ে নিজের নির্বাচনী এলাকায় বন্যার্তদের ঘরে ঘরে প্রতিমন্ত্রী শফিকুর রহমান চৌধুরী শাল্লায় শিক্ষা ও চিকিৎসায় সহযোগিতার হাত বাড়ালেন প্রকৌশলী সৌমেন সেন হবিগঞ্জে জমে উঠেছে কোরবানির পশুর হাট || দাম উঠছে ৪ লাখের উপরে মাধবপুরে কোরবানির পশুর হাটে ব্যস্ত সময় পার করছেন ক্রেতা-বিক্রেতারা

সাংসদ কেয়া চৌধুরীর অবস্থা উন্নতির দিকে : হামলার প্রতিবাদে উত্তাল বাহুবল

  • শনিবার, ১১ নভেম্বর, ২০১৭

নিজস্ব প্রতিবেদক : হবিগঞ্জের বাহুবল উপজেলার মিরপুরে শুক্রবার হামলায় আহত নারী সাংসদ অ্যাডভোকেট আমাতুল কিবরিয়া কেয়া চৌধুরীর অবস্থার উন্নতি দিকে। তবে তাকে গভীর পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে। তিনি সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। হামলার ব্যাপারে এখনও কোন মামলা হয়নি।
কেয়া চৌধুরীর ব্যক্তিগত সহকারী ইমন চৌধুরী জানান, শনিবার দুপুরে ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মেডিসিন বিভাগের প্রধান ডা সব্যসাচী রায়ের নেতৃত্বে একটি বোর্ড বসে এখানেই তার চিকিৎসা চালিয়ে যাবার সিদ্ধান্ত নেয়।
তিনি আরও জানান, চিকিৎসকের পরামর্শে কেয়া চৌধুরীকে স্যুপসহ নরম খাবার দেয়া হচ্ছে। তার স্বামী আমজাদ হোসেন খান, ভাই মামুন চৌধুরী ও সুজন চৌধুরী এখানে রয়েছেন। তবে একমাত্র মেয়ে শুকরিয়া ঢাকায়। এছাড়া বৃদ্ধা মা রোকেয়া চৌধুরী হবিগঞ্জে রয়েছেন।
ডা সব্যসাচী রায় জানান, কেয়া চৌধুরীর যথাযথ চিকিৎসা চলছে। প্রয়োজন হলে তাকে ঢাকায় প্রেরণ করা হবে।
কেয়া চৌধুরীকে দেখতে ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেতাকর্মীরা ভীড় জমাচ্ছেন।
হবিগঞ্জ প্রতিনিধি জানান, কেয়া চৌধুরীর উপর সন্ত্রাসী হামলার প্রতিবাদে উত্তাল বাহুবলে মানববন্ধন করা হয়েছে।
শনিবার দুপুর ১টায় উপজেলার মিরপুরে আলিফ সোবহান চৌধুরী কলেজের সামনে এ কর্মসূচি পালন করা হয়।
মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, কেয়া চৌধুুরীর উপর হামলাকারী তারা মিয়া ও তার সাঙ্গপাঙ্গকে অবিলম্বে গ্রেফতারে করে আইনের আওতায় আনতে হবে। অন্যথায় বৃহত্তর আন্দোলন গড়ে তোলা হবে।
মানববন্ধনে অন্যদের মাঝে বক্তব্য রাখেন, আলিফ সোবহান চৌধুরী কলেজ গভর্নিং বডির সদস্য জাহিদুল হক জিতু, আস্কর আলী, রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের বিভাগীয় প্রধান বজলুর রহমান, ইংরেজির প্রভাষক মাসুক মিয়া ও লামাতাশী ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান চৌধুুরী টেনু।
আলাপকালে কেয়া চৌধুরীর ভাই ও জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট ফয়জুল বশীর চৌধুরী সুজন বলেন, কেয়া চৌধুরীর বাড়ি বাহুবল উপজেলায়। তিনি যদি নিজের বাড়িতে নিরাপদ না থাকেন, তাহলে বাংলাদেশের আর কোথায় নিরাপদ থাকবেন। যারা মনে করছেন, নোংরামি করে কেয়া চৌধুরীকে ঘরে পাঠিয়ে দেবেন তারা বোকার রাজ্যে বসবাস করছেন।
তিনি বলেন, কেয়া চৌধুরী বাহুবল ও নবীগঞ্জের সাধারণ মানুষের পাশে ছিলেন, আছেন এবং সারা জীবন থাকবেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More

লাইক দিন সঙ্গে থাকুন

স্বত্ব : খবরসবর ডট কম
Design & Developed by Web Nest