NATIONAL
Prime Minister Sheikh Hasina said that she was afraid that the BNP-Jamaat alliance could do such an attack to stop the country's progress on the road to prosperity || প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, তার আশঙ্কা ছিল, সমৃদ্ধির পথে দেশের অগ্রযাত্রা রুখে দিতে বিএনপি-জামায়াত জোট এই ধরনের হামলা করতে পারে
সংবাদ সংক্ষেপ
অপ্রতিরোধ্য অগ্রযাত্রায় আরেকটি কৃষ্ণকাল অতিক্রম করলো বাংলাদেশ Sylhet Chamber thanked the Prime Minister অস্থিতিশীল পরিস্থিতি দক্ষ হাতে নিয়ন্ত্রণের জন্য প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানালো সিলেট চেম্বার সন্ত্রাস ও নৈরাজ্য সৃষ্টির অপতৎপরতার বিরুদ্ধে এবার রাজপথে নামছে আওয়ামী লীগ জৈন্তাপুরে পুলিশের অভিযানে ২৫০ পিস ইয়াবা ও ৪৯৬ গ্রাম গাঁজাসহ গ্রেফতার ২ আওয়ামী লীগের উদ্যোগে সিলেটে গায়েবানা জানাজা অনুষ্ঠিত কোটা সংস্কার আন্দোলকে কেন্দ্র করে বুধবারও সিলেট উত্তপ্ত ছিল জকিগঞ্জে দুই মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষে দুই কিশোর নিহত || আহত ২ মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বিরোধী সকল ষড়যন্ত্র সাংস্কৃতিক আন্দোলনের মাধ্যমে মোকাবিলার অঙ্গীকার ঘোষণা ভবিষ্যৎ প্রজন্মের প্রতি দায়বদ্ধতা থেকে আন্দোলন করছে বিশ্ববিদ্যালয় পরিবার : ড আখতারুল ইসলাম মুক্তিযুদ্ধের চেতনাবিরোধী স্লোগানের নিন্দা জাস্টিস ফর বাংলাদেশ জেনোসাইডের সিলেট চেম্বারের সেমিনার ওয়ার্কশপ ও সম্মাননা প্রদান সাব-কমিটির সভা জঙ্গি সন্ত্রাস মাদক ও কিশোর গ্যাং নির্মূলে কাজ করতে হবে একসঙ্গে : এসএমপি কমিশনার দক্ষিণ সুরমার পারাইরচকে এসএমপি পুলিশ লাইন্স ও পিবিআইর সদর দফতরের স্থান নির্ধারণ সম্মিলিত প্রচেষ্টায় শিক্ষাক্ষেত্রে সিলেটকে এগিয়ে নিতে হবে : মেয়র আনোয়ারুজ্জামান রথযাত্রা বাঙালি সংস্কৃতির অংশ হয়ে গেছে : নাসির উদ্দিন খান

ময়নাতদন্ত শেষে চিন্তামনিতে দুই শিশুর দাফন সম্পন্ন ।। পিতা এখনো পলাতক

  • মঙ্গলবার, ২৫ অক্টোবর, ২০১৬

নিজস্ব প্রতিবেদক : সিলেটের ওসমানীনগর উপজেলার চিন্তামনি গ্রামে সংঘটিত হত্যাকাণ্ডের পর থেকে পিতা এখনো নিখোঁজ। নিহত দুই শিশুপুত্রের মরদেহ ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে ময়নাতদন্ত শেষে দাফন করা হয়েছে।
সোমবার সন্ধ্যার ঠিক পূর্ব মৃহূর্তে দয়ামির ইউনিয়নের চিন্তামনি গ্রামের পাশে ডোবার মতো জায়গায় রুজেল আহমদ (১১) ও মামুন আহমদ (৭) নামের দুই ভাইয়ের মরদেহ পাওয়া যায়। বড়ো ভাইয়ের মাথার পিছনে ছিল ধারালো অস্ত্রের ছয়টি কোপ। আর ছোটো ভাইয়ের মাথার পিছনে দুইটি কোপ ছাড়াও পেটে ছিল আরেকটি কোপ, যা দিয়ে নাড়ি-ভুরি বের হয়ে যায় বলে তাদের চাচাতো ভাই শাহেদ আহমদ রুহিন জানিয়েছেন।
তিনি জানান, দুপুরে রুজেল আহমদ ও মামুন আহমদের পিতা কৃষি শ্রমিক ছাতির আলী তাদেরকে নিয়ে পার্শ্ববর্তী হাওরে যান। কিছু সময় পর বড়ো ছেলেকে দিয়ে কিছু মাছ পাঠান বাড়িতে। মাছ বাড়িতে পৌঁছে দিয়ে সে আবার বাবার কাছে ফিরে যায়; কিন্তু বিকেল পর্যন্ত তারা বাড়ি ফিরে না আসায় রুজেল আহমদ ও মামুন আহমদের মা স্বজনদেরকে খোঁজ নিতে অনুরোধ করেন।
শাহেদ আহমদ রুহিন জানান, বেশ কিছু সময় ধরে খোঁজাখুঁজির পর সবসময় মাছ পাওয়া যায়-এমন একটি পরিচিত ডোবার মতো জায়গায় রুজেল আহমদকে ডুবন্ত অবস্থায় ও মামুন আহমদকে ডোবার কিনারে আধা ডুবন্ত অবস্থায় মৃত পাওয়া যায়। খবর পেয়ে ওসমানীনগর থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে মরদেহ উদ্ধার করে ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করে।
তিনি বলেন, হত্যাকাণ্ডটি কে ঘটিয়েছে তা এখনো স্পষ্ট নয়। তার চাচা এখনো নিখোঁজ। ছাতির আলীর সাথে কারো কোন বিষয়ে শত্রুতা থাকার সম্ভাবনাও নেই। তবে তার স্ত্রীর সাথে প্রায় ৬ মাস ধরে বনিবনা হচ্ছিলনা। তাদের দুই ছেলের মাঝখানে একটি কন্যাসন্তান রয়েছে।
সিলেটের পুলিশ সুপার মো মনিরুজ্জামান চিন্তামনি গ্রামে ছাতির আলীর বাড়িতে গিয়ে শোকাহত স্বজনদের স্বান্ত্বনা দিয়েছেন।
ময়নাতদন্তের পর মরদেহ বাড়িতে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে বাদ আসর নামাজে জানাজা শেষে মরদেহ দুটি দাফন করা হয়েছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More

লাইক দিন সঙ্গে থাকুন

স্বত্ব : খবরসবর ডট কম
Design & Developed by Web Nest