ফেঞ্চুগঞ্জের মুক্তিযোদ্ধা তালিকায় নতুন অর্ন্তভুক্তির প্রতিবেদন লাপাত্তা

Published: 23. Feb. 2021 | Tuesday

নিজস্ব প্রতিবেদক : সিলেটের ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলার মুক্তিযোদ্ধা তালিকায় নতুন অর্ন্তভুক্তির প্রতিবেদনের কোন খোঁজ নেই। অথচ দেশের অন্যসব উপজেলার তালিকা মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ে ঠিকই পৌঁছে গেছে।
মঙ্গলবার দুপুরে সিলেট জেলা প্রেসক্লাবে আহুত সংবাদ সম্মেলনে উপজেলার আগের তালিকার বাইরে থেকে যাওয়া মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ পরিবারের সদস্যরা এই তথ্য প্রকাশ করেন।
এতে লিখিত বক্তব্যে মুক্তিযুদ্ধের শহীদ আসাদুজ্জামান বাচ্চুর ছোটভাই মো মানিকুজ্জামান জানান, মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয় ও জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিলের (জামুকা) অধীনে ২০১৪ সালে আগের তালিকায় নাম বাদপড়া মুক্তিযোদ্ধাদের নাম অর্ন্তভুক্তির জন্য অনলাইনে আবেদনের সুযোগ দেওয়া হয়। ফেঞ্চুগঞ্জের ২১ জন মুক্তিযোদ্ধা সেই সুযোগ গ্রহণ করেন। এর পরিপ্রেক্ষিতে ২০১৭ সালের ১২ জানুয়ারি যাচাই বাছাই সম্পন্ন করে ৭ ফেব্রুয়ারি তৎকালীন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হুরে জান্নাত মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব বরাবর প্রতিবেদন প্রেরণ করেন (স্মারক নং ০৫.৪৬.৯১৩৫.০০০.১৬.০২৩.২০১৭-১৪০)। অনুলিপি পাঠানো হয় জামুকা মহাপরিচালক ও সিলেটের জেলা প্রশাসকের নিকট; কিন্তু প্রতিবেদনটির হদিস কোথাও পাওয়া যাচ্ছে না। বিষয়টি রীতিমতো রহস্যময় হয়ে উঠেছে।
সংবাদ সম্মেলনে আশংকা প্রকাশ করা, কুচক্রী মহলের চক্রান্তে সকল প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে চূড়ান্ত করা বীর মুক্তিযোদ্ধাদের নতুন তালিকাটি গোপন করে রাখা হয়েছে।
এ ব্যাপারে সংবাদ সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সদয় দৃষ্টি ও হস্তক্ষেপ কামনা করা হয়।

Share Button
April 2021
M T W T F S S
« Mar    
 1234
567891011
12131415161718
19202122232425
2627282930  

দেশবাংলা